সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ০৮:০৭ অপরাহ্ন

বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ তার পর অন্তঃসত্ত্বা

গাজীপুর সংবাদদাতা:
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৮ অক্টোবর, ২০১৯
  • ১১

 

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১২) দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে মো. ফয়সাল (২২) নামের এক যুবকের বিরুদ্ধে। এতে করে ওই ছাত্রী দুই মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছে।

ধর্ষক ফয়সালের বাড়ি উপজেলার আড়াবাড়ি এলাকায়। তিনি মাওনা পিয়ার আলী ডিগ্রি কলেজের ছাত্র।

স্কুলছাত্রীর পরিবারিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার মৌচাক এলাকার একটি বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ওই ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ করে আসছিল ফয়সাল। কয়েকদিন আগে ওই ছাত্রী স্কুলে ক্লাস চালাকালে অসুস্থ হয়ে পড়ে। এ সময় সহপাঠী ও শিক্ষকরা তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়। পরদিন তাকে মৌচাক পুপুলার হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরামর্শ দেন। পরীক্ষার রিপোর্টে দেখা যায়, সে দুই মাসের অন্তঃসত্ত্বা। পরে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

সেখানে চিকিৎসা শেষে ওই ছাত্রী বর্তমানে বাড়িতেই অবস্থান করছে। বিষয়টি জানাজানি হওয়ায় লজ্জায় স্কুলেও যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে সে।

ওই ছাত্রীর বাবা বলেন, মেয়ের চিকিৎসা চলছে। এখনও সে পুরোপুরি সুস্থ হয়নি। সুস্থ হলে মেয়েকে নিয়ে গিয়ে থানায় অভিযোগ দেবো।

এ বিষয়ে মৌচাক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান লোকমান হোসেন জানান, ওই ছাত্রীর বাবা আমাকে বিষয়টি জানিয়েছে। বিষয়টা স্পর্শকাতর তাই আমি তাকে আইনের সহায়তা নিতে বলেছি।

মৌচাক পুলিশ ফাঁড়ির এসআই জামাল উদ্দিন জানান, বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে কেউ অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..