শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৯:৩৭ পূর্বাহ্ন

ডেমরায় জাতীয় পরিচয়পত্র জালিয়াতি করে জমি দখল

তদন্ত প্রতিবেদক:
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২৯ অক্টোবর, ২০১৯
  • ৩৭

রাজধানীর ডেমরায় জাতীয় পরিচয়পত্র জালিয়াতি করে অভিনব কায়দায় ভূমির দলিল করার অভিযোগ করেছেন মোস্তাফিজুর রহমান নামে এক ব্যক্তি। শনিবার ডেমরা থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করেছেন তিনি ডায়রি নং ৮৬০ ডেমরা থানা তারিখ ২০/১০/২০১৯ খৃষ্টাব্দ।

জানা যায়, ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৬৪ নং ওয়ার্ড এলাকার জিএম সারোয়ার নামে এক ব্যক্তি ঘটিয়েছেন এমন ঘটনা। জমি দখল করতে তিনি তৈরি করেছেন ভূয়া ভোটার আইডি কার্ড ৷ আইডি কার্ডে জমির আসল মালিকের ছবি স্বাক্ষর আর ভূয়া মালিকের আইডি নম্বর ব্যবহার করেছেন তিনি। এরপর সেই আইডি কার্ড দেখিয়ে বানিয়ে নিয়েছেন ভূয়া দলিল। আর এতে বেকায়দায় পড়েছেন আসল মালিকের কাছ থেকে জমি কেনা ব্যক্তি গন ।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, জমিটির সাবেক মালিক ভূপতি দাসের ছবি ও স্বাক্ষর বসিয়ে রাম পদ সরকার নামে আরেক ব্যক্তির ভোটার আইডি কার্ডের নম্বর ব্যবহার করে উক্ত ভূপতি দাসের নামে একটি ভূয়া আইডি কার্ড বানানো হয়। এরপর ভূয়া আইডি ও নকল ভূপতি দাস সাজিয়ে ডেমরার ধার্মিকপাড়া এলাকার এসএ- ৪, আরএস-১২২, সিটি ১/১, খতিয়ান এসএ- ৮১, আরএস- ৫০, সিটি ১৫০৯ ও ১৫১০ জমিটি নিজের নামে করে নেন জিএম সারোয়ার নামে এক ভূমি জালিয়াত।

অভিযোগ সূত্র ও পুরোনো নথি থেকে দেখা গেছে, উত্তরাধিকার সূত্রে জমিটির মালিকানা পেয়ে ভূপতি দাস সেই জমি ১৯৬১ সালে আব্দুল হাকিম, আব্দুল হাই, আব্দুর রহিম, আব্দুল করিম নামে চার ভাইয়ের নিকট বিক্রি করে ভূপতি দাস স্থায়ী ভাবে ভারত চলে যান।

এরপর আরো কয়েকদফা হাত বদল হয়ে ১৯৮৭ সালে জমিটি মোস্তাফিজুর গং ক্রয় করে জমির মালিক হিসেবে তারাই এর ভোগদখল করে আসছিলেন। এরপর ২০১৩ সালে জিএম সারোয়ার ভূয়া ভূপতি দাসকে দিয়ে একটি দলিল বানিয়ে নেন কিন্তু দলিল সম্পাদনে দেয়া আইডি কার্ডের নম্বরটি (২৬১১২৯৩১৮৫১০৪) নির্বাচন কমিশনে সার্চ দিয়ে দেখা যায় আইডি কার্ডটি রাম পদ সরকারের।

এমন জালিয়াতির কাণ্ডে বিস্ময় প্রকাশ করে মোস্তাফিজুর বলেন, এরকম কায়দা করে জালিয়াতি হতে পারে তা অভাবনীয়। আমি থানায় একটি ডায়রি করেছি , আশা করি দ্রুত এসব জালিয়াত চক্রকে আইনের আওতায় আনার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..